ডিমলা নীলফামারী প্রতিনিধি- নীলফামারী ডিমলা উপজেলার খালিশা চাপানী ইউনিয়নের এস২টি ক্যানেলের উপর চেক ড্রপ এর অভাবে এবারে ইরি মৌসুমে সেজ বিিঞ্চত হচ্ছে কৃষক অনাবধি রয়ে যাচ্ছে কয়েক শত একর জমি। এলাকাবাসী বলেন কৃষি আমাদের চলার পথে একমাত্র সম্বল। সেই সম্বল টুকু হারাতে বসেছি চেক ড্রপের অভাবে। পানি না হলে ফসল ফলাতে পারবো না ফলে পরিবার পরিজনকে নিয়ে বসতে হবে পথে। তাই ডালিয়া পাউবো কর্মকর্তাগণ যদি চেক ড্রপ নির্মানে সুদৃষ্টি দেন তবেই এতদঞ্চলের কৃষকের মুখে ফুটবে হাসি।
এ বিষয়ে আরও কথা হয় কৃষক মনছুর আলী, নছির উদ্দিন , রেজাউল করিম , জিল্লুর রহমানসহ অনেকে বলেন এস২টি ক্যানেলের সভাপতি , সেক্রেটারী কে জানাছি, অফিসারক জানাছি, কোনদিন দেখিনো না অফিসার হামার সাথে দেখা সাক্ষাত করিল । কৃষকের এ দাবী সর্ম্পকে জানতে চাইলে এস২টি ক্যানেলের সেক্রেটারী বলেন ডালিয়া পাউবো কর্মকর্তাদের কে বহুবার উক্ত বিষয়ের উপর দাবী-দাবা ও দরখাস্ত দিলেও তারা কোন বিষয়ে কর্ণপাত ও ব্যবস্থা গ্রহন করছেন না। আমরা যতটুকু জানি প্রতিবছরে এসকল ক্যানেল সংস্কাররের জন্য মোটা অংকের বাজেট হলেও কাজ হয় যত সামান্য। এ ব্যাপারে জানতে চাইলে উপসহকারি প্রকৌশলী ডালিয়া পওর শাখা-২ কর্মকর্তা মোস্তাফিজুর রহমান বলেন তিস্তা ব্যারেজের প্রকল্প পুনঃবাসন ও কমান্ড এরিয়া ডেভেলমেন্ট নামে ইতি মধ্যে একটি প্রকল্প গ্রহন করা হচ্ছে এতে যাবতীয় সমস্যা সমাধান করা হবে ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here