Amar Praner Bangladesh

হাসপাতাল থে‌কে খা‌লেদা জিয়া‌কে বাসায় নেওয়া হ‌তে পা‌রে

 

 

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

 

রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে কয়েকদিনের মধ্যে বাসায় নেওয়া হতে পারে। তিনি নিজেও এখন আর হাসপাতালে থাকতে চাইছেন না। সবকিছু ঠিক থাকলে চিকিৎসকরাও বাসায় রেখে তার প্রয়োজনীয় চিকিৎসা করতে চাইছেন বলেও ক‌য়েক‌টি গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ হ‌য়ে‌ছে।

এ ব্যাপা‌রে খালেদা জিয়ার চিকিৎসক (নাম প্রকা‌শে অনিচ্ছুক) প্রাণের বাংলাদেশকে জানিয়েছেন, ‘বিএনপি চেয়ারপারসনের শারীরিক অবস্থার একটু উন্নতি হওয়ায় গত ৯ জানুয়ারি তাকে সিসিইউ থেকে কেবিনে স্থানান্তর করা হয়ে‌ছে। এরপর থেকেই তিনি হাসপাতাল ‌ছে‌ড়ে বাসায় যাওয়ার জন্য ব্যস্ত হ‌য়ে প‌ড়ে‌ছেন। য‌দিও তা‌কে বাসায় নেওয়ার মত পরিস্থিতি এখনও হয়‌নি।’

তি‌নি ব‌লেন, এর ম‌ধ্যে গত ১৫ জানুয়ারি তার গৃহকর্মী ফাতেমা করোনাক্রান্ত হয়ে‌ছে। ফাতেমাকে ১৬ জানুয়ারি এভারকেয়ার হাসপাতালের করোনা ব্লকের ৬০২৪ কেবিনে ভর্তি করা হয়ে‌ছে।

বিএন‌পির এক‌টি সূত্র জানায়, খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থার কিছুটা উন্নতি ঘটায় তার পুত্রবধূ শর্মিলা রহমান গত ১৬ জানুয়ারি লন্ডনে চলে গেছেন। এখন তার জন্য গঠিত মেডিক‌্যাল বোর্ডের সদস্যদের পাশাপাশি বিশেষ সহকারী শামসুর রহমান শিমুল বিশ্বাস ও অন্যরা নিয়মিত তার খোঁজখবর রাখছেন।

ত‌বে বিএন‌পির চেয়ারপারস‌নের প্রেস উইং সদস্য শাইরুল কবির খান রাইজিংবি‌ডি‌কে ব‌লেন, ‘বেগম খা‌লেদা জিয়ার শরী‌রের যে অবস্থা, এখ‌নি তা‌কে বাসায় এনে চি‌কিৎসা করার ম‌তো পরিস্থিতি হয়‌নি। এরকম কো‌নো সিদ্ধান্ত হয়‌নি। হ‌লে আপনা‌দের জানাব।’

উল্লেখ্য, লিভার সিরোসিসে আক্রান্ত খালেদা জিয়াকে গত ১৩ নভেম্বর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এভারকেয়ারের চিকিৎসক ডা. শাহাবুদ্দিন তালুকদারের নেতৃত্বে ১০ জনের একটি বিশেষ মেডি‌ক‌্যাল টিম তার চিকিৎসা সেবা দিচ্ছে। খালেদা জিয়া লিভার সিরোসিস ছাড়াও আর্থ্রাইটিস, ডায়াবেটিস, কিডনি, ফুসফুস, চোখের সমস্যাসহ নানা জটিলতায় ভুগছেন।