Amar Praner Bangladesh

আনোয়ার হোসেন মঞ্জু বাংলাদেশের রাজনীতির আদর্শের দিকপাল

 

 

আল মামুন :

 

মৃত্যুর এপারে ওপারে বেঁচে থাকে সেই সব কীর্তিত্বজন যারা লাভ করেন অনন্তের অভিধা স্বাত্ত্বিকতার অভিধা জনাব আনোয়ার হোসেন মঞ্জু এর জীবন অনন্তের, স্বাত্ত্বিকের। ইনসানুল কামিল তথা মানুষের সেবা আর কল্যাণে তার অতীত-বর্তমান-ভবিষ্যৎ একই সুচাগ্রে গাঁথা হয়ে আছে থাকবে তার সহজ সরল চলাফেরা আর অহংকার মুক্ত মনের মধ্য দিয়ে ।

বরিশালের ভান্ডারিয়ার কৃতি সন্তান সারা দেশে পরিচিত সব জায়গায় প্রিয় মুখ আনোয়ার হোসেন মঞ্জু বহুমুখী ব্যাপক ও বিস্তৃত জ্ঞানের অধিকারী। আনোয়ার হোসেন মঞ্জু (জন্ম ১ জানুয়ারি ১৯৪৪) একজন বাংলাদেশী রাজনীতিবিদ, ব্যবসায়ী ও সাংবাদিক, জাতীয় পার্টি (জেপি)’র সম্মানিত চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন মঞ্জু।

যিনি পিরোজপুর ২ আসন থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য এবং সাবেক পানিসম্পদ মন্ত্রী। এর পূর্বে তিনি আরও দুবার দুটি মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী (যোগাযোগ মন্ত্রী ও বিদ্যুৎ জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিভাগের মন্ত্রী) ছিলেন। তিনি পিরোজপুর জেলার কাউখালী, ভান্ডারিয়া ও জিয়ানগর উপজেলা নিয়ে গঠিত পিরোজপুর ২ আসন থেকে ৬ বারের (১৯৮৬,১৯৮৮, ১৯৯১, ১৯৯৬, ২০০১, ২০১৪) নির্বাচিত সংসদ সদস্য।

তার পিতা তোফাজ্জল হোসেন মানিক মিয়া একজন নামকরা রাজনীতিবিদ এবং দৈনিক ইত্তেফাক এর প্রতিষ্ঠাতা ছিলেন। আনোয়ার হোসেন মঞ্জু ১৯৭২-১৯৭৫ সাল পর্যন্ত দৈনিক ইত্তেফাক এর সম্পাদক ছিলেন। তিনি ১৯৯৬-২০০১ সময়কালে আওয়ামী লীগ এর নেতৃত্বাধীন সরকারকে সমর্থন প্রদান করেন এবং সেসময় বাংলাদেশ সরকারের যোগাযোগ মন্ত্রী ছিলেন।

সংবিধান অনুযায়ী দশম জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর কাছে ৩ জানুয়ারী ২০১৯ তারিখে একাদশ সংসদের সংসদ সদস্য হিসেবে তিনি শপথবাক্য পাঠ করেন। গভীর বাস্তব অভিজ্ঞতা সম্পন্ন, তীক্ষ্ন মেধা, ঐশী শক্তি সম্পন্ন, বিচক্ষন-বিশ্লেষক, মানব দরদী সমাজ কল্যানকামী এই মহান পুরুষ তার পরিচ্ছন্ন, উদার ধর্ম ও সমাজ চিন্তার আলোকে সমগ্র মানব সমাজের উন্নয়ন ও আধ্যাত্মিকজীবন গঠনের মহান দায়িত্ব নিয়ে পিতা-মাতার প্রতি সন্তানের ভালোবাসার উপর গভীর সাধনায় তার সাবলীল ভালোবাসার প্রতিচ্ছবি গড়ে তুলেছেন ইত্তেফাক গ্রুপ।

মানুষের সুন্দর ভাষা আর তার উত্তম ব্যবহার হতে পারে বিশাল পুঁজি। ইত্তেফাক গ্রুপের আনোয়ার হোসেন মঞ্জু পরিচ্ছন্ন ব্যবসায়ী সমাজের উজ্জল দৃষ্টান্ত। আনোয়ার হোসেন মঞ্জু এর মূলমন্ত্র মাকে ভালোবাসো, পিতাকে শ্রদ্ধা করো, মায়ের পায়ের নিচে জান্নাত। তার মূল লক্ষ্য স্রষ্টার এবাদত ও সৃষ্টির সেবা।

তার এই মিশন সমগ্র মানব জাতির সামাজিক ও আধ্যাত্মিক উন্নতি সাধন করবে। এই মিশন মানুষে মানুষে বিভেদ দূর করবে। দুনিয়ায় শান্তি আর পরকালে মুক্তির মধ্যেই একজন ব্যক্তির প্রকৃত বিজয় হয়। তার কথা, নিজের জন্মভূমিকে ভালবাসতে হবে, স্বাধীনতার প্রকৃত মূল্যবোধকে নিজের বুঝতে হবে অন্যকেও বুঝাতে হবে।

মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী জনাব আনোয়ার হোসেন মঞ্জু স্বাধীনতার স্থপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে ভালোবেসে সবাইকে বলেন, দেশকে ভালোবাসো যেমনি বঙ্গবন্ধু ভালোবেসে ছিলেন। মক্কা মদিনার প্রতি সৃষ্টির শ্রেষ্ঠ মহামানব আখেরী নবী হযরত মোহাম্মদ (সা:) এর দেশ প্রেম থেকে শিক্ষা নিতে হবে। মুখে নয় কাজে প্রমাণ করতে হবে আপনি দেশ প্রেমিক। একজন মানুষ জনাব আনোয়ার হোসেন মঞ্জু কতটা সৎ ও শুদ্ধ, সত্য ও সুন্দর, সত্তম ও সদ্ধুত তা নির্ভর করে তার চরিত্র কতটা নিস্কলঙ্ক, কতটা অমল-ধবল, অমিতাভ, কতটা ন্যায়-নীতি আদর্শ নিষ্ঠা তার উপর।

অনেক অভিজ্ঞাতায় অর্জিত শিক্ষা পারে পরীক্ষা-নিরীক্ষার মাধ্যমে, কথায় ও কাজের অন্বয়ে, সুচিন্তন ও সুচেতার সাজুস্যে, স্নেহ ও প্রেমের সংশ্লেষ্ট-তবেই তার বিকাশ ও প্রকাশ, প্রতিভাস। আনোয়ার হোসেন মঞ্জু নির্মল চরিত্র, ফুলেল চরিত্র নির্ঝর চরিত্র, রুপে অপরুপ রুপস চরিত্র।

এই জ্যেতিময় চরিত্র ধারন করে জনাব আনোয়ার হোসেন মঞ্জু বিষ্ময়কর মানবরুপী একটি ভবিষ্যৎ আদর্শিক দৃষ্টান্ত, নিজের জন্য নয় তার গড়া প্রতিষ্ঠান মূল সাংস্কৃতির মূল্যবোধকে জাগ্রত করবে শিক্ষা-দীক্ষা, জ্ঞান-গরিমা, প্রেম-প্রীতি ও পূণ্যতায় ইত্তেফাক গ্রুপ আজ বিশ^ময় সমাদৃত।