চাঁদপুরে হিন্দু যুবকের মরদেহ শ্নশানে পৌঁছে দিলেন ইসলামী আন্দোলন

 

 

মোঃসুজন মিয়া, চাঁদপুর থেকে :

 

করোনায় আক্রান্ত হওয়া ব্যক্তির লাশ দাফনেও যখন পরিবারের লোকজন মুখ ফিরিয়ে নিচ্ছে, যখন মৃতের লাশ ঘড়ে ফেলে রেখে পরিবারের আপন মানুষগুলো পালিয়ে যাচ্ছে, আর এমন সব খবর টিভি আর পএিকার পাতায় গুরুত্ব দিয়ে প্রচার করছে ঠিক সেই ক্লান্তিকালে মানবতার অনন্য দৃষ্টান্ত স্হাপন করে যাচ্ছেন বাংলাদেশের আলেম সমাজ। তারা কেবল মুসলিম নয়, হিন্দুদের মৃতদেহ নিয়ে যাচ্ছেন শ্নশানে।

তেমনই একটি সুন্দরতম সাম্য ও সম্প্রীতির ঘটনার জম্ম দিলেন বাংলাদেশ ইসলামী আন্দোলন চাঁদপুর জেলা স্বেচ্ছাসেবক টিম। এবারে করোনা ভাইরাসে মৃত হিন্দু ব্যক্তির লাশ শ্নশানে নিয়ে গেলেন তারা।

২জুন সন্ধায় করোনা উপসর্গ নিয়ে চাঁদপুর সদর হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে চিকিংসাধিন অবস্হায় মারা যায় সমীর চন্দ্র দাস (৪৫) নামের এক ব্যক্তি। খবর পেয়ে ইসলামী আন্দোলন চাঁদপুর এর স্বেচ্ছাসেবী টিম হাসপাতাল থেকে সমীর চন্দ্র দাসের মৃতদেহ নিয়ে চাঁদপুর ইচুলী ঘাটস্হ শ্নশানে নিয়ে যায়। প্রয়াত সমীর চন্দ্র দাস হাইমচর উপজেলার উওর আলগী ইউনিয়নের কমলাপুর গ্রামের বিরশ্বর চন্দ্র দাসের পুএ।

প্রসঙ্গত সারা দেশের ন্যায় চাঁদপুরেও বাংলাদেশ ইসলামী আন্দোলনের স্বেচ্ছাসেবক টিম মৃত্যুর ঝুকি নিয়ে করোনাক্রান্ত মৃতদেহ দাফন করে যাচ্ছেন। এখন পর্যন্ত তারা ২৪টি মৃতদেহের জানাজা ও দাফন করেছেন।