Amar Praner Bangladesh

ছক্কার ঝড়ে বাংলাদেশের ২০৭

 

 

ক্রীড়া ডেস্কঃ

 

ওমান এ দলের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচে ব্যাট হাতে দারুণ করেছেন বাংলাদেশ একাদশের ব্যাটসম্যানরা। দুই ওপেনার লিটন দাস ও মোহাম্মদ নাঈমের দারুণ শুরুর পর শেষে নুরুল হাসান সোহানের ছক্কার ঝড়ে ২০৭ রানে থামে বাংলাদেশ। তবে ৮ রানের ব্যবধানে ৩ উইকেট না হারালে গল্পটা আরও ভিন্ন হতো।

শুক্রবার (৮ অক্টোবর) ওমানের আল আমেরাত ক্রিকেট গ্রাউন্ডে খেলাটি শুরু হয় রাত সাড়ে ৮টায়। বাংলাদেশ আগে ব্যাটিং করে ৪ উইকেট হারিয়ে ২০৭ রান তোলে। মাত্র ১৫ বলে ৪৯ রান নিয়ে সোহান ও ১০ বলে ১৯ রান নিয়ে শামীম পাটোয়ারি অপরাজিত ছিলেন।

শেষ ১২ বলের মধ্যে সোহান-শামীম হাঁকান ৭টি ছয়। তার মধ্যে সোহান একাই হাঁকান ৫টি। ১৯তম ওভারের প্রথম ৩ বলে ৩টি ছয়ের পর ইনিংসের শেষ ২ বলেও উড়িয়ে বাউন্ডারি পার করেন। সব মিলিয়ে বাংলাদেশ ইনিংসে ছয়ের মার ১৩টি। শেষ ৫ ওভারে বাংলাদেশ তোলে ৮১ রান।

দুই ওপেনার লিটন ও নাঈমকেই আউট করতে পারছিলেন না ওমানের বোলাররা। প্রথম উইকেটের দেখা পেতে অপেক্ষা করতে হয় ১২তম ওভার পর্যন্ত। ততক্ষণে শতরান জমা হয়ে যায় বাংলাদেশের স্কোরবোর্ডে। মাত্র ৩৩ বলে ৩টি চার ও ২টি ছয়ে ৫৩ রান করেন লিটন। অপর ওপেনার নাঈম সাজঘরে যান রিটায়ার্ড হয়ে। তিনি ৬টি চার ও ১টি ছয়ে ৫৩ বলে ৬৩ রান করেন।

লিটন আউট হলে বাংলাদেশ মাত্র ৮ রানের ব্যবধানে হারায় ৩ উইকেট। সৌম্য সরকার ৮ বলে ৮ ও আফিফ হোসেন বলে ৬ রান করলেও মুশফিকুর রহিম প্রথম বলেই ফেরেন শূন্য রানে। নাঈম রিটায়ার্ড হয়ে ফিরলে ক্রিজে আসেন শামীম। এরপর সোহান-শামীম মিলে ইনিংস শেষ করে আসেন।

ওমানের হয়ে ২টি করে উইকেট নেন আমির কলিম ও সামি শ্রীবাস্তব। ইনিংসের প্রথম দুই বলেই নো-ওয়াইড দেওয়া রাফিউল্লাহ ৪ ওভারে দেন ৪৮ রান।

এই ম্যাচে খেলছেন না নিয়মিত অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। অধিনায়কত্ব করছেন লিটন কুমার দাস। এ ছাড়া নেই তাসকিন আহমেদও। আর সাবসটিটিউট খেলোয়াড় হিসেবে আছেন আমিনুল ইসলাম বিপ্লব ও রুবেল হোসেন।