জিটিসি’র উদ্যেগে জাতীয় শোক দিবস পালন

 

ফুলবাড়ী দিনাজপুর প্রতিনিধি:

দিনাজপুরের মধ্যপাড়া পাথর খনিতে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর ৪৫তম শাহাদাৎ বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে দোয়া ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্টিত হয়েছে। দিবসটি উপলক্ষে শনিবার সকাল ১০ টায় মধ্যপাড়া পাথর খনির ওয়েল ফেয়ার চত্তরে, পাথর খনির রক্ষনাবেক্ষণ, ব্যবস্থাপনা ও উৎপাদন কাজে নিয়োজিত বেলারুশ ভিত্তিক ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান জার্মানীয়া-ট্রেস্ট কনসোর্টিয়াম (জিটিসি) স্বাস্থ্য বিধি মেনে এই দোয়া ও মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করে।

মিলাদ ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, মধ্যপাড়া গ্রানাইট মাইনিং কোম্পানী লিমিটেডের ব্যবস্থপনা পরিচালক (এমডি) এবিএম কামরুজ্জামান।

অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, জার্মানীয়া-ট্রেস্ট কনসোর্টিয়াম (জিটিসি) এর নির্বাহী পরিচালক মোঃ জাবেদ সিদ্দিকী, মধ্যপাড়া পাথর খনির মহা-ব্যবস্থাপক (ইউজিওএন্ডএম) মো: আবু তালেব ফরাজী, মহা-ব্যবস্থাপক (হিসাব ও অর্থ) মো: মাহবুবুল আলম, ১০ নং হরিরামপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মাসুদুর রহমান শাহ, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি শাহবুদ্দিন শাহ প্রমুখ। দোয়া পরিচালনা করেন ফুলবাড়ী কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের ঈমাম মাও. মোঃ এমদাদুল হক।

দোয়া অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধু ও সেই সাথে নিহত সকল শহীদদের আত্মার মাগফিরাত কামনা এবং প্রধানমন্ত্রীর সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা করা হয়। পাশাপাশি করনা মহামারি থেকে বাংলাদেশ সহ বিশ^কে হেফাজতের জন্য আল্লাহর দরবারে প্রার্থনা করা হয়।

মিলাদ ও দোয়া শেষে খনিতে কর্মরত সকল খনি শ্রমিকসহ কর্মচারিদের পরিবারের জন্য উপহার হিসেবে খাদ্য সামগ্রী বিতরন করা হয়।

জিটিসি কর্তৃক মধ্যপাড়া পাথর খনি লাভজনক প্রতিষ্ঠানে পরিনত হওয়ায় আল্লাহর দরবারে শুকরিয়া আদায় করে সকল খনি শ্রমিক, এমজিএমসিএল এর কর্মকতা, কর্মচারী এবং খনি এলাকাবাসীকে কোম্পানীর পক্ষ থেকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন জিটিসি’র নির্বাহী পরিচালক মোঃ জাবেদ সিদ্দিকী।

সেই সাথে এলাকার প্রিয় মুখ সাবেক সফল মন্ত্রী বর্তমান প্রাথমিক ও গণ শিক্ষা মন্ত্রনালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি এ্যাডভকেট মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান ফিজার এম.পি. কে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন । যিনি পাথর খনি উন্নয়নে জিটিসি’কে বিভিন্ন সময়ে মুল্যবান পরামর্শ দিয়ে সহযোগিতা কওে আসছেন। এ সময় পাথর খনির এমজিএমসিএল এর সকল কর্মকর্তা কর্মচারী, জিটিসির সকল কর্মকর্তা কর্মচারী এবং খনির শ্রমিকগণ উপস্থিত ছিলেন।