টিকটক ‘অপু ভাই’ গ্রেপ্তার

 

নিজস্ব প্রতিবেদক:

 

সড়কে মারামারির ঘটনায় ভিডিও অ্যাপস লাইকির কথিত পরিচিত মুখ অপু ওরফে ‘অপু ভাইকে’ গ্রেপ্তার করেছে উত্তরা পূর্ব থানা পুলিশ।

সোমবার সন্ধ্যায় উত্তরা ৬ নম্বর সেক্টরের আলাউল এভিনিউয়ের ১২ নম্বর বাড়ির পাশের সড়ক থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

রোববার রাতে অপুর বিরুদ্ধে মামলাটি দায়ের করেন মারধরের শিকার প্রকৌশলী মেহেদি হাসান রবিন।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই আজিজুল ইসলাম জানান বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, সড়কে একজনকে মারধরের ঘটনায় অপুর বিরুদ্ধে একটি মামলা হয়েছিল। এই মামলায় তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এ ঘটনায় অপুর আরেক সহযোগীকে গ্রেফতার করা হয়।গ্রেপ্তার অপুর বাবার নাম শহীদ ইসলাম। তার গ্রামের বাড়ি নোয়াখালীর সোনাইমুড়ী। দক্ষিণখান এলাকার একটি বাসায় থাকতো অপু। মঙ্গলবার সহযোগীসহ অপুকে আদালতে পাঠানো হবে।

জানা যায়, রোববার প্রকৌশলী মেহেদি হাসান রবিন কয়েকজন বন্ধুসহ উত্তরার সড়কটি দিয়ে তার ব্যক্তিগত গাড়ি চালিয়ে যাচ্ছিলেন। সে সময় আলাউল এভিনিউয়ের সড়ক আটকে ‘অপু ভাই’ ও তার সহযোগীরা ভিডিও অ্যাপস লাইকির কন্টেন্ট বানানোর জন্য রাস্তা দখল করেছিল।

রবিন রাস্তা আটকানো দেখে হর্ন বাজায়। হর্ন বাজানোর পর অপু ও তার সহযোগীরা বিরক্ত হয়ে তাদের উদ্দেশে অশালীন কথা বলতে থাকে। রবিন আর তার বন্ধুরা গাড়ি থেকে নেমে সাইড দিতে বলে।

তবে অপু ও তার সহযোগীরা রাস্তা না ছেড়ে রবিনসহ তার দুজন বন্ধুকে মারধর করে। এতে রবিন এবং বাকি দুজন গুরুতর আহত হয়। এ ঘটনায় রবিন সোমবার উত্তরা পূর্ব থানায় মামলা করেন।

এদিন স্থানীয়রা অপু ও তার সহযোগীদের বিরক্ত করার জন্য গণপিটুনি দেয়। সে সময় পুলিশ অপু ও তার আরেক সহযোগীকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। পরে তাদের রবিনের করা মামলায় গ্রেপ্তার দেখানো হয়।

উল্লেখ্য, সোশ্যাল মিডিয়া লাইকিতে রঙিন চুলে ছোট ভিডিও করে বেশ পরিচিতি লাভ করেন ‘অপু ভাই’। এই মাধ্যমে তাকে অনুসরণ করেন প্রায় ১০ লাখ অনুসারী।