Amar Praner Bangladesh

দক্ষিণখান থেকে চোরাই মোটরসাইকেলসহ ৩জন আটক

 

 

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

 

উত্তরায় মোটরসাইকেল চুরি ও বেচাকেনার কাজে কয়েকটি সিন্ডিকেট জড়িত। দীর্ঘদিন ধরে পুলিশ এই সিন্ডিকেটে জড়িতদের আটক এবং চুরি যাওয়া মোটরসাইকেল উদ্ধারে নিরলস ভাবে পরিশ্রম করে যাচ্ছে। তারই ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার (৯আগস্ট) কয়েকটি স্থানে অভিযান চালিয়ে রাজধানীর দক্ষিণ খান থানা এলাকা থেকে চোরাই মোটরসাইকেল ও চুরি ও বিক্রিতে সহযোগিতার অভিযোগে এক গ্যারেজ মালিক সহ তিনজনকে আটক করা হয়েছে।আটককৃতরা হলেন, কুমিল্লা জেলার বারকুনিয়া গ্রামের ফারুক মিয়ার ছেলে মো. মেহেদী হাসান (২১), নারায়নগঞ্জ জেলার শহিদুল ইসলামের ছেলে মো. কামরুল (২২) ও শেরপুর জেলার আব্দুল গনির ছেলে তাজুল ইসলাম (২২)। এ সময় তাদের কাছ থেকে ১টি সিবিআর মোটরসাইকেল, ১টি পালসার এবং ১টি এপাচি-ব্রান্ডের মোটরসাইকেলসহ মোট ৩টি মোটরসাইকেল উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারকৃত মোটরসাইকেল গুলোর মূল্য আনুমানিক ১০ লক্ষ ৫০ হাজার টাকা।

আজ (বুধবার) উত্তরার ডিসি অফিসে এক সংবাদ সম্মেলন করে ডিএমপির উত্তরা বিভাগের ডিসি মোহাম্মদ মোর্শেদ আলম সাংবাদিকদের একথা জানান। তিনি বলেন, মোটরসাইকেল চুরি এবং বেচা-বিক্রির কাজে জড়িত সিন্ডিকেটের আরও সদস্যদের ধরতে পুলিশ তৎপরতা চালিয়ে যাচ্ছে। এক প্রশ্নের জবাবে ডিসি জানান, বিগত কয়েক মাসে এয়ারপোর্ট থেকে আব্দুল্লাহপুর পর্যন্ত বাস স্ট্যান্ড গুলো থেকে প্রায় চার শতাধিক ছিনতাইকারী আটক করে আইনের আওতায় আনা হয়েছে।

এলাকার ছিনতাই নিয়ন্ত্রণে সিভিলে এবং পোশাকে প্রতিদিন অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে পুলিশ । অপর এক প্রশ্নের জবাবে মোর্শেদ আলম বলেন, ব্যাটারি চালিত অটোরিকশা এবং ইজিবাইক বন্ধে মহামান্য হাইকোর্টের নির্দেশনা থাকায় প্রতিদিন অভিযান পরিচালিত হচ্ছে। অটোরিকশা ইজিবাইক ধরে মামলা এবং ডাম্পিংয়ের আওতায় আনা হচ্ছে। এ অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও তিনি জানান।