Amar Praner Bangladesh

রোহিঙ্গা নির্যাতনের প্রতিবাদে ফটিকছড়িতে বিক্ষোভ সমাবেশ

এইচ.এম.সাইফুদ্দীন,ফটিকছড়ি:
মায়ানমারের আরকান রাজ্যের সাধারণ রোহিঙ্গা মুসলিম নিরাপরাধ নারী, শিশুদের উপর নির্যাতন, বাড়িঘর পুড়িয়ে দেওয়াসহ নির্বিচারে গণহত্যার প্রতিবাদে ফটিকছড়িতে গণমিছিল ও বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে বৃহত্তর ফটিকছড়ি উপজেলা ইসলামী আইন বাস্তবায়ন কমিটি। গত শুক্রবার বিকালে গণমিছিলটি ফটিকছড়ি উপজেলা সদরের বিভিন্ন গুরুত্ব সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে কেন্দ্রিয় ঈদগাহ ময়দানে এক বিক্ষোভ সমাবেশে মিলিত হয়। এতে সংগঠনগুলোর নেতাকর্মীরাসহ শত শত ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা অংশগ্রহন করেন।
ইসলামী আইন বাস্তবায়ন কমিটি ফটিকছড়ি পৌরসভা শাখার সভাপতি মাওলানা ফয়জুল্লাহর সভাপতিত্বে বিক্ষোভ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ‘র নায়েবে আমীর আল্লামা শাহ মুহ্বিুল্লাহ বাবুনগরী। তিনি বলেন, ‘রোহিঙ্গা মুসলিমদের উপর সুচী’র লালিত সেনারা বর্বর হত্যাযজ্ঞ চালাচ্ছে। সুচী মুসলমানদের রক্ত নিয়ে হুলি খেলছে। সংখ্যালঘু মুসলিমদের অত্যাচার সহ্য সীমার বাইরে চলে গেছে। সরকার অনুমতি দিলে বাংলার ১২ কোটি মুসলমান ঐক্যবদ্ধভাবে আরাকানের মুসলিম মা-বোনদের মুক্ত করবো।’
বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ‘র যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা সলিম উল্লাহ। এ সময় তিনি বলেন, ‘হিটলারের বর্বরতাকে হার মানিয়েছে সুচী। আরকানে নিরাপরাধ মুসলিম রোহিঙ্গা নির্যাতন ও হত্যা বন্ধে এখনই প্রয়োজনীয় প্রদক্ষেপ না নিলে জাতিসংঘ, তার জাতিসত্ত্বা হারাবে।’
বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন ইসলামী আইন বাস্তবায়ন কমিটির নায়েবে আমীর মুফতি মাহমুদুল হাসান। তিনি সরকারের উদ্দেশ্যে বলেন, ‘আরাকানের সীমান্ত নিরাপদ করুন, আরাকানের সীমান্ত নিরাপদ না হলে বাংলাদেশের সীমান্তও নিরাপদ থাকবে না। রোহিঙ্গা মুসলিমদের উপর চলমান নির্যাতন বন্ধে প্রয়োজনে মায়ানমার সীমান্ত খুলে দিন।’
ইসলামী আইন বাস্তবায়ন কমিটি ফটিকছড়ি উপজেলা শাখার যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা সেলিম উদ্দিন দৌলতপুরীর সঞ্চালনায় এতে আরো বক্তব্য রাখেন, সংগঠনের সহসাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা হাবিব উল্লাহ, সহ-অর্থসম্পাদক মাওলানা হাবিব উল্লাহ ধর্মপুরী, সহকারী অর্থ সম্পাদক মাওলানা জুনায়েদ বিন জালাল, উপদেষ্টা সদস্য মাওলানা মো. ইলিয়াছ, প্রচার সম্পাদক মাওলানা নুরুল আলম নছরী, নায়েবে আমীর আব্দুর রহিম ইসলামাবাদী, কারী আবু সাঈদ প্রমূখ।