Amar Praner Bangladesh

সরকারী জমি দখল করে জমজমাট ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে কিছু অসাধু ব্যবসায়ীরা

সিরাজুল ইসলাম, অভয়নগরঃ
অভয়নগর উপজেলার সুন্দলী বাজারের প্রাণকেন্দ্র মশিহাটি রোড টাওয়ারের বীপরিতে জন চলাচলের সরকারী রাস্তার উপর ১৫ ফুট উঠে এসে অনেকগুলি দোকান ঘর নির্মাণ করে ব্যবসা-বাণিজ্য পরিচালনা করছেন বেশ কয়েকজন স্থানীয় ব্যক্তি। স্থানীয় প্রশাসনের অবহেলার সুযোগে এ সকল ব্যক্তিবর্গ জনস্বার্থ উপেক্ষা করে স্থাপনা নির্মাণ করে জনগনের চলাচলের রাস্তা অযোগ্য করে তুলেছে। সরকারী জায়গায় স্থায়ী স্থাপনা করার নিয়ম না থাকলে ও তারা সরকারী জায়গা দখল করে স্থাপনা নির্মাণ করে আছে যুগের পর যুগ। এ সকল ব্যক্তিরা হলেন ডাঃ অনুপ মল্লিক, শুকুমার মল্লিক, বিনোদ মন্ডল, শুকলাল মল্লিক, পংকজ সরকার, সনজিৎ কর্মকার,অমিও মন্ডল, শুকুমার সরকার। দলিল লেখক বাবু শচিন কবিরাজ, বাবু সুনীল বিশ্বাস, তুষার বিশ্বাস, গোবিন্দ, অশোক বিশ্বাস সহ স্থানীয় আরো অনেকে অভিযোগ করেন, এ সকল স্থাপনার জন্য গাড়ির জ্যাম সব সময় লেগে থাকে। সরকারী জায়গা দখলকারীরা এলাকার প্রভাবশালী হওয়ায় তাদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করতে কেউ সাহসী হয় না। এ বিষয়ে দখলকারী ডাঃ অনুপের কাছে জানতে চাইলে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, “তার ভবনটি ১২/১৩ ফুট রাস্তার জায়গার উপর উঠে নির্মাণ করা আছে বলে স্বীকার করেন। তিনি আরও বলেন, তিনি শুধু একা নন, এ এলাকার অনেক ব্যক্তিই আছেন যারা সরকারী রাস্তায় দোকান, ঘর-বাড়ি নির্মাণ করে আছে। কর্তৃপক্ষ যদি সবাইকে স্থাপনা সরিয়ে নিতে নির্দেশ দেয় তাহলে আমিও আমার স্থাপনা সরিয়ে নেব।” এ বিষয়ে স্থানীয় জনগণ অধীর কুমার পাঁড়ে, নিমাই মজুমদার, নৃপেনন্দ্রনাথ বিশ্বাস, বীরেন্দ্রনাথ বিশ্বাস, সুশীল কবিরাজ, সুখদেব কবিরাজ, গোবিন্দ মল্লিক, সুনীল কান্তি বিশ্বাস, শচিন্দ্রনাথ কবিরাজ প্রমুখ অভয়নগর ভুমি অফিস, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও যশোর জেলা প্রশাসকের নিকট লিখিত অভিযোগ প্রেরণ করেন। এ বিষয়ে এলাকায় টানটান উত্তেজনা বিরাজ করছে।